রবিবার ২৮ নভেম্বর ২০২১, ১৪ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

পিআইডি এর নিয়ম অনুসারে আবেদিত

মানুষ বেঁচে থাকতে কিছু করুন, মৃত্যুর পর কাঁদবেন না : মীর

প্রকাশিত : 10:39 AM, 14 May 2021 Friday

গণঅধিকার নিউজ ডেস্কঃ

“বেঁচে থাকতে জিজ্ঞেসও করেননি, এখন মৃত্যুর পর শোক পালন করতে এসে গিয়েছেন…” ভারতের পরিস্থিতি নিয়ে দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে এমন ভাষায়ই বিঁধলেন মীর আফসার আলী।

কভিড প্রতিষেধক নেই। সেখানে অগ্রাধিকার মোদির ‘প্রাসাদ’! হাসপাতালে শয্যা নেই। অক্সিজেনের অভাবে প্রতিমুহূর্তে দেশটির কোনো না কোনো প্রান্তে মৃত্যু হচ্ছে করোনা রোগীর। ভ্যাকসিন নেই। চারদিকে হাহাকার। লাশের ভিড়। গণ-শবদাহের আগুনে ডুকরে ডুকরে কাঁদছে দেশবাসী। দেশের এমন করুণ পরিস্থিতিতে আন্তর্জাতিক মহলও উদ্বিগ্ন।

তবে মহামারির এমন চরম পরিস্থিতিতেও কিন্তু ঘটা করে মোদির নয়া বাসভবন নির্মাণের কাজ চলছে। বন্ধ হয়নি। বরং সেই কাজ যাতে চালু থাকে, নরেন্দ্র মোদির স্বপ্নের ‘সেন্ট্রাল ভিস্তা রিডেভেলপমেন্ট’ প্রকল্পের অন্তর্গত এই কর্মসূচিকে ‘অত্যাবশ্যকীয় পরিষেবা’র অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। দেশটির রাজধানী যেখানে মৃত্যুপুরীতে পরিণত হয়েছে। কভিড শবদেহ পোড়াতে পোড়াতে ক্লান্ত কর্মীরা, সেখানে কেন্দ্রীয় সরকারের এমন ‘অমানবিক’ পদক্ষেপ নিয়ে ইতিমধ্যেই প্রশ্ন উঠেছে। সেই পরিপ্রেক্ষিতে দিন কয়েক আগেই তৃণমূলের তারকা নেত্রী সায়নী ঘোষ মোদিকে ‘জাহাঁপনা’ সম্বোধন করে কড়া ভাষায় বিঁধেছিলেন। এবার কটাক্ষ করলেন অভিনেতা তথা কৌতূকশিল্পী-সঞ্চালক মীর।

ফেসবুকে একটি পোস্ট করে মীর লিখেছেন, “নরেন্দ্র মোদির কাছে আমার বিনীত নিবেদন, মানুষ মরে যাওয়ার পর কাঁদবেন না! বেঁচে থাকতেই দয়া করে তাঁদের জন্য কিছু করুন।” অভিনেতার এমন পোস্টে অনুরাগীদের অনেকেই সায় দিয়েছেন। কেউ বা আবার জ্বলন্ত রোমের মাঝে নিরোর বাঁশি বাজানোর কথাও মনে করিয়ে দিয়েছেন এ প্রসঙ্গে।

প্রসংগত, ভারতের মহামারি পরিষেবা মোকাবেলা করতে মোদি সরকার ব্যর্থ বলে অনেকেই সমালোচনায় সরব হয়েছেন। নেটজনতাদের একাংশ ঝড় তুলেছেন সোশ্যাল মাধ্যমে। বাদ গেলেন না মীরও। এবার অভিনেতা-সঞ্চালক খানিক ব্যঙ্গ করেই কটাক্ষ করলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রীকে।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক গণঅধিকার'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyganoadhikar@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

দৈনিক গণঅধিকার'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। দৈনিক গণঅধিকার | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, ডেভোলপ ও ডিজাইন: DONET IT