ঢাকা, বুধবার ১৪ এপ্রিল ২০২১, ১লা বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

পিআইডি এর নিয়ম অনুসারে আবেদিত

বিমান ও ইউএস বাংলার মালয়েশিয়া ফ্লাইট চালু হচ্ছে

প্রকাশিত : 01:20 AM, 16 August 2020 Sunday

গণঅধিকার নিউজ ডেস্কঃ

দীর্ঘ পাঁচ মাস পর আবারও মালয়েশিয়ায় নিয়মিত ফ্লাইট চালু করছে বিমান ও ইউএস বাংলা। আগামী ১৬ আগস্ট ইউএস বাংলা এবং ১৮ আগস্ট থেকে ফ্লাইট চালুর ঘোষণা দিয়েছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স। বাংলাদেশ ও মালয়েশিয়া সরকারের সব ধরনের স্বাস্থ্যবিধি ও ভ্রমণ সংক্রান্ত নির্দেশনা মেনে বিমান প্রাথমিকভাবে সপ্তাহে দুদিন ঢাকা থেকে কুয়ালালামপুরে যাবে বিমানের ফ্লাইট। আগামী ১৮ আগস্ট থেকে যাত্রীদের নিয়ে ঢাকা থেকে মঙ্গলবার ও শুক্রবার সন্ধ্যা ৭টা ১৫ মিনিটে কুয়ালালামপুর যাবে বিমানের ফ্লাইট। বুধবার ও শনিবার ভোর ২টা ২০ মিনিটে কুয়ালালামপুর থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসবে।

এদিকে ১৬ আগস্ট থেকে ইউএস-বাংলার ঢাকা-কুয়ালালামপুর ফ্লাইট পুনরায় শুরু হচ্ছে। কোভিড-১৯ সময়কালীন অভ্যন্তরীণ রুটের ধারাবাহিকতায় এশিয়ার অন্যতম গন্তব্য কুয়ালালামপুরে ফ্লাইট শুরু করতে যাচ্ছে। প্রাথমিকভাবে সপ্তাহে দু’দিন ঢাকা থেকে কুয়ালালামপুরে পুনরায় ফ্লাইট পরিচালনা করা হবে। বৃহস্পতি ও রবিবার সকাল ৮টা ৫০ মিনিটে ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে কুয়ালালামপুর আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাবে। এবং কুয়ালালামপুর থেকে একই দিন স্থানীয় সময় বিকেল ৩টা ৫০ মিনিটে ঢাকার উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসবে। ১৬৪ আসনের বোয়িং ৭৩৭-৮০০ এয়ারক্রাফট দিয়ে ঢাকা-কুয়ালালামপুর-ঢাকা রুটে ফ্লাইট পরিচালনা করা হবে। ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সে ৬টি ব্র্যান্ডনিউ এটিআর ৭২-৬০০, ৩টি ড্যাশ ৮-কিউ৪০০ ও ৪টি বোয়িং ৭৩৭-৮০০ সহ মোট ১৩টি এয়ারক্রাফট রয়েছে। বর্তমানে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স ঢাকা থেকে গুয়াংজু রুটে সপ্তাহে একটি আন্তর্জাতিক ফ্লাইট পরিচালনা করছে। এছাড়া কোভিড-১৯ মহামারীকালীন বিশ্বের বিভিন্ন গন্তব্যে আটকে পড়া যাত্রীদের সুবিধার্থে ও কার্গো পরিবহনে স্পেশাল ফ্লাইট পরিচালনা করছে।

কোভিড-১৯ সময়কালীন ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স আটকে পড়া যাত্রীদের সুবিধার্থে চেন্নাই, কলকাতা, দিল্লী, লাহোর, ব্যাংকক, কুয়ালালামপুর, সিঙ্গাপুর, আবুধাবি, দুবাই, দোহা, মাস্কাট ও ইউরোপের অন্যতম গন্তব্য ফ্রান্সের প্যারিসে স্পেশাল ফ্লাইট পরিচালনা করেছে। ঢাকা-কুয়ালালামপুর-ঢাকা ফ্লাইট সংক্রান্ত যেকোন তথ্যের জন্য আপনার নিকটস্থ ট্রাভেল এজেন্ট অথবা ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের সেলস্ কাউন্টারে যোগাযোগের জন্য অনুরোধ করা যাচ্ছে।

কাতার থেকে ফিরেছেন ৪১৩ ॥ এদিকে বিমানের একটি চার্টার্ড ফ্লাইটে কাতারের রাজধানী দোহা থেকে দেশে ফিরেছেন ৪১৩ বাংলাদেশী। বুধবার সকাল ৬টায় ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছান তারা। করোনায় কাতারে আটকা পড়েন বাংলাদেশী এই নাগরিকরা। দু-দেশের মধ্যে ফ্লাইট চলাচল বন্ধ থাকায় তারা দেশে ফিরতে পারছিলেন না। উভয় দেশের সরকারের সহযোগিতায় বিমানের চার্টার্ড ফ্লাইটে বুধবার তারা দেশে ফেরেন। দেশে ফেরাদের মধ্যে দেশটিতে অবৈধভাবে বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশী শ্রমিকরাও রয়েছেন। বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের উপ-মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) তাহেরা খন্দকার বলেন, করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট নিয়ে ভ্রমণ করায় কাউকে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হয়নি।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক গণঅধিকার'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyganoadhikar@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

দৈনিক গণঅধিকার'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। দৈনিক গণঅধিকার | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, ডেভোলপ ও ডিজাইন: DONET IT