মঙ্গলবার ২৫ জানুয়ারি ২০২২, ১২ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

পিতার লাশ নিয়ে হাসপাতালে কান্নারত শিশুকে সাহায্য করলেন জেলা পুলিশ

প্রকাশিত : 08:36 PM, 7 July 2021 Wednesday

গণঅধিকার নিউজ ডেস্কঃ

রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে করোনা উপসর্গ নিয়ে মৃত পিতার লাশ পাহারা দেওয়ার ছবি ফেসবুকে ভাইরাল হওয়া সেই শিশু কন্যা মরিয়ম খাতুন (৭) এর পরিবারের পাশে দাঁড়ালো মানবিক পুলিশ সুপার প্রকৌশলী আবদুল মান্নান মিয়া, বিপিএম। তার নির্দেশনার আলোকে পরিদর্শক শফিউল আজম খান বুধবার পোরশা উপজেলার বিষ্ণুপুর কলোনীপাড়া গ্রামে কলিমুদ্দিনের ছেলে মৃত্যু মজিবর রহমানের বাড়িতে গিয়ে তিনি মৃত ব্যক্তির স্ত্রী মোছাঃ তানজিলা (৩২) ও তার মেয়ে মরিয়ম (৭) এর হাতে অনুদানের নগদ ১০ হাজার টাকা এবং বিভিন্ন উপহার সামগ্রী তুলে দেন।এসময় পোরশা থানার অন্যান্য কর্মকর্তা ও ফোর্স এবং স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। পারিবারিক সূত্রে জানা যায় মৃত মজিবর রহমান পেশায় একজন ফেরিওয়ালা ছিলেন। রিকসা ভ্যানে তিনি মেলামাইন ও সিরামিক জাতীয় জিনিসপত্র বিক্রি করে জীবিকা নির্বাহ করতেন। প্রায় এক সপ্তাহ যাবত ঠান্ডা জ্বরে আক্রান্ত হওয়ায় স্থানীয় পোরশা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গিয়ে চিকিৎসার জন্য গত ৪ জুলাই রাত ১০ টায় ভর্তি হলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে চিকিৎসা প্রদান করেন।পরবর্তীতে তার অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে ৫ জুলাই সোমবার সকাল ৭ টায় রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করেন। এরপর রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে গিয়ে হাসপাতালে ভর্তি করার পূর্বেই অল্প সময় হাসপাতালের বারান্দায় সকাল সাড়ে ১১ টায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন। এ সময় শিশু মেয়ে মরিয়ম খাতুন তার পিতার লাশের পাশে বসে থেকে কান্নাকাটি করার ভিডিও সোস্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল হয়।পরবর্তীতে তার পরিবারের সদস্যরা মৃত মজিবরের লাশ বাড়িতে নিয়ে এসে রাত্রিবেলা নিয়ম অনুযায়ী দাফন কাজ সম্পন্ন করেন। বিষয়টি পুলিশ সুপার প্রকৌশলী জনাব আবদুল মান্নান মিয়া, বিপিএম অবগত হন।পরে তার নির্দেশনায় পোরশা থানার পরিদর্শক শফিউল আজম খাঁন এর মাধ্যমে উক্ত মৃতের পরিবারকে আর্থিক সাহায্য বাবদ নগদ ১০ হাজার টাকা এবং বিভিন্ন উপহার সামগ্রী প্রদান করা হয়। এছাড়াও নওগাঁ জেলা পুলিশের পক্ষে মানবিক পুলিশ সুপার প্রকৌশলী জনাব আবদুল মান্নান মিয়া উক্ত অসহায় পরিবারের পাশে সার্বক্ষনিক সব রকম সহায়তার আশ্বাস দিয়েছেন বলেও জানান ওসি।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক গণঅধিকার'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyganoadhikar@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

দৈনিক গণঅধিকার'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

এই বিভাগের জনপ্রিয়

© ২০২২ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। দৈনিক গণঅধিকার | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, ডেভোলপ ও ডিজাইন: DONET IT