ঢাকা, মঙ্গলবার ২৬ অক্টোবর ২০২১, ১১ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

পিআইডি এর নিয়ম অনুসারে আবেদিত

পরাজয় স্বীকার না করে ‘বিব্রতকর’ পরিস্থিতি সৃষ্টি করেছেন ট্রাম্প

প্রকাশিত : 08:21 AM, 12 November 2020 Thursday

গণঅধিকার নিউজ ডেস্কঃ

মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে নিজের পরাজয় স্বীকার না করে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প একটি ‘বিব্রতকর’ পরিস্থিতি সৃষ্টি করেছেন বলে মন্তব্য করেছেন জো বাইডেন। কিন্তু যুক্তরাষ্ট্রের সদ্য নির্বাচিত এই প্রেসিডেন্ট বলেছেন, কোন কিছুই ক্ষমতা হস্তান্তরকে থামিয়ে রাখতে পারবে না। ট্রাম্প ইতোমধ্যে টুইট করে বলেছেন, শেষ পর্যন্ত তিনিই জয় পাবেন। খবর বিবিসি, সিএনএন, আলজাজিরা, রয়টার্স ও গার্ডিয়ানের।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প পরাজয় মেনে নিতে অস্বীকার করেছেন, এ বিষয়ে নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট কি ভাবছেন, ডেলওয়ারের উইলমিংটনে এক সাংবাদিক বাইডেনকে এ প্রশ্ন করেন। উত্তর বাইডেন বলেন, খোলাখুলি বললে, এটিকে আমি বিব্রতকর বলে মনে করি। ২০ জানুয়ারি এসব শেষ হবে। যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টের অভিষেক অনুষ্ঠানের ইঙ্গিত দিয়ে তিনি বলেন, শেষ পর্যন্ত, আপনারা সবাই জানেন, জানুয়ারির বিশ তারিখেই পরিপূর্ণতা দেখা যাবে। ২০ জানুয়ারি ২০২১ যুক্তরাষ্ট্রের পরবর্তী প্রেসিডেন্ট হিসেবে বাইডেনের অভিষেক হওয়ার কথা রয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে অঙ্গরাজ্য পর্যায়ের ফল সরকারীভাবে ঘোষিত হয়নি, বেশ কয়েকটি জায়গায় ভোট গণনা এখনও চলছে। ওই অঙ্গরাজ্যগুলোর ফল নির্ধারিত হওয়ার পর ১৪ ডিসেম্বর যুক্তরাষ্ট্রের ইলেক্টোরাল কলেজের বৈঠকে নির্বাচনের চূড়ান্ত ফল ঘোষণা করা হবে। হোয়াইট হাউসের ওভাল দফতরের দায়িত্ব নেয়ার জন্য প্রস্তুতি নিতে থাকা বাইডেনকে বিদেশী রাষ্ট্রগুলোর নেতারা ফোন করে অভিনন্দন জানাচ্ছেন। তিনি যাদের সঙ্গে কথা বলেছেন তাদের মধ্যে ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন, আয়ারল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী মিকেল মার্টিন, ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ ও জার্মানির চ্যান্সেলর এ্যাঞ্জেলা মেরকেল অন্যতম। এ প্রসঙ্গে বাইডেন বলেছেন, আমি তাদের জানিয়েছি, আমেরিকা ফিরে আসছে। আমরা আবার খেলায় ফিরে আসছি।

কমলাকে নিয়ে পোস্ট দিলেন তার স্বামী ॥ যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম নারী ভাইস প্রেসিডেন্ট হয়ে ইতিহাস গড়েছেন কমলা হ্যারিস। তিনি প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ ভারতীয় বংশোদ্ভূত নারী, যিনি এই দায়িত্ব নেবেন। কমলা হ্যারিস যেহেতু প্রথম নারী ভাইস প্রেসিডেন্ট, তাই তার স্বামী ডগলাস এমহফও হচ্ছেন প্রথম ‘সেকেন্ড জেন্টেলম্যান’। প্রকাশিত খবরে জানা যায়, দুই দিন আগে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এমহফ তার স্ত্রী কমলা হ্যারিসকে অভিনন্দন জানিয়েছেন। স্ত্রীকে আলিঙ্গন করে আছেন এমন একটি ছবি পোস্ট করে তিনি লেখেন, আমি তোমাকে নিয়ে গর্বিত।

পেন্টাগনের শীর্ষ কর্মকর্তার পদত্যাগ ॥ মার্কিন প্রতিরক্ষা সদর দফতর পেন্টাগনের নীতিবিষয়ক শীর্ষ কর্মকর্তা জেমস এ্যান্ডারসন পদত্যাগ করেছেন। দেশটির প্রতিরক্ষা দফতরের শীর্ষ দুই কর্মকর্তা জানিয়েছেন। এ্যান্ডারসন নিজ থেকেই পদত্যাগ করেছেন নাকি তাকে পদত্যাগ করতে বলা হয়েছিল, তা তাৎক্ষণিকভাবে স্পষ্ট নয়।

ট্রাম্পকে রিপাবলিকানদের সমর্থন ॥ নির্বাচনে হার স্বীকার না করা প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে এবার জোরালো সমর্থন জানিয়েছেন রিপাবলিকানরা। সিনেটের শীর্ষ রিপাবলিকান নেতা মিচ ম্যাককনেল বলেছেন, নির্বাচনে অনিয়মের বিষয়টি খতিয়ে দেখার শতভাগ অধিকার আছে ট্রাম্পের। প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বাইডেন জয় পাওয়ার পর প্রথম মন্তব্যে ম্যাককনেল বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রের রাজনৈতিক ব্যবস্থাই যেকোন ভোট পুনর্গণনা কিংবা মামলার নিষ্পত্তি করে দেবে। ট্রাম্প নির্বাচনে হার মেনে না নেয়ার গোঁ ধরে বসে আছেন। ভোটে জালিয়াতির ভিত্তিহীন অভিযোগ করে যাচ্ছেন তিনি। ট্রাম্পের হার স্বীকার না করা নিয়ে তার পরিবারও বিভক্ত হয়ে পড়েছে। ট্রাম্পের স্ত্রী মেলানিয়া এবং জামাতা জ্যারেড কুশনার তাকে হার মেনে নেয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন।

দ্বিতীয় মেয়াদে ট্রাম্প সরকারের ‘স্বপ্ন’ দেখছেন পম্পেও ॥ যুক্তরাষ্ট্রের ৪৬তম প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে পরাজয়ের পরও ট্রাম্পের দ্বিতীয় মেয়াদে দায়িত্ব পালন নিয়ে আত্মবিশ্বাসের কথা জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও। তিনি বলেছেন, প্রতিটি ‘বৈধ’ ভোট গণনার পর দ্বিতীয় দফায়ও ট্রাম্পই সরকার গঠন করবেন। এর মধ্যে দিয়ে বাইডেনের জয়কে অস্বীকার করেছেন পম্পেও। এতে তীব্র সমালোচনার মুখে পড়েন পম্পেও।

মেলানিয়ার কথা পাত্তাই দিচ্ছেন না ট্রাম্প ॥ প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে পরাজিত হওয়ার পর অনেকটাই এলোমেলো হয়ে পড়েছেন ট্রাম্প। পরাজয় মেনে নেয়া তো দূরের কথা। আইনী লড়াই চালিয়ে যাওয়ার হুমকি দিচ্ছেন। যখন তখন টুইট করছেন। টুইটে নির্বাচনের কারচুপির অভিযোগ তোলার সঙ্গে সঙ্গে এখনও জয়ী হওয়ার আশা ব্যক্ত করছেন। ট্রাম্পকে বাইডেনের কাছে হার মেনে নেয়ার পরামর্শ দিয়েছিলেন স্ত্রী মেলানিয়া। সেই পরামর্শ গায়ে মাখছেন না ট্রাম্প।

ট্রলের শিকার ট্রাম্পপুত্র ॥ মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ভোট গ্রহণের দিন ছিল গত ৩ নবেম্বর। কিন্তু এর এক সপ্তাহ পরে এসে মার্কিন ভোটারদের ভোট দিতে যাওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন ট্রাম্পের ছেলে এরিক ট্রাম্প। এ নিয়ে রীতিমতো ট্রলের বন্যা বইয়ে যাচ্ছে তাকে নিয়ে। আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, গত মঙ্গলবার মার্কিন ভোটারদের ভোট দিতে যাওয়ার আহ্বান জানিয়ে একটি টুইট করেছেন ট্রাম্পপুত্র।

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক গণঅধিকার'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyganoadhikar@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

দৈনিক গণঅধিকার'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। দৈনিক গণঅধিকার | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, ডেভোলপ ও ডিজাইন: DONET IT