ঢাকা, শনিবার ২৩ অক্টোবর ২০২১, ৮ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

পিআইডি এর নিয়ম অনুসারে আবেদিত

পরাজয়ের দায় নিলেন আর্মেনিয়ার প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত : 06:51 PM, 19 November 2020 Thursday

গণঅধিকার নিউজ ডেস্কঃ

বিরোধীয় নাগোরনো-কারাবাখ নিয়ে আজারবাইজানের সঙ্গে পরাজয়ের দায় নিয়েছেন আর্মেনিয়ার প্রধানমন্ত্রী নিকোল পাশিনিয়ান।তবে ৪৪ দিন চলা সংঘাতে পরাজয়ের পর বিরোধীদের পক্ষ থেকে পদত্যাগের দাবি প্রত্যাখ্যান করেছেন তিনি।

বুধবার ফেসবুকে দেওয়া এক পোস্টে নিজের অবস্থান তুলে ধরেছেন নিকোল পাশিনিয়ান।

কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আলজাজিরা জানিয়েছে, ১৯৯০ সালের যুদ্ধে এই অঞ্চলটির দখল হারিয়েছিল বাকু। এরপর থেকে প্রায় তিন দশক ধরে আর্মেনীয় জাতিগত গোষ্ঠী এর নিয়ন্ত্রণ নেয়। এরপর তারা ওই অঞ্চলে সরকার গঠন করেছিল। তবে সেই সরকারকে আর্মেনিয়াও স্বীকৃতি দেয়নি। আন্তর্জাতিকভাবে নাগোরনো কারাবাখ আজারবাইজানের ভূখণ্ড হিসেবে স্বীকৃত।

ছয় সপ্তাহ চলা যুদ্ধে আজারবাইজান কারাবাখে দ্বিতীয় বৃহত্তর শহর শুশা দখল করে। আজারবাইজানের একের পর এক হামলায় বিপর্যস্ত হয়ে পড়ে আর্মেনীয় বাহিনী। এরপরই রাশিয়ার হস্তক্ষেপে দুই দেশের মধ্যে শান্তি চুক্তি হয়।এর ফলে যুদ্ধ ছাড়াই কয়েকটি অঞ্চলের দখল আসবে আজারবাইজানের হাতে।

এরপর থেকেই দেশটিতে তোপের মুখে পড়েন প্রধানমন্ত্রী নিকোল পাশিনিয়ান।দেশটির প্রেসিডেন্ট আগাম পার্লামেন্ট নির্বাচনের আহ্বান জানিয়েছেন।

পরাজয়ের দায় কাধে নিয়ে ফেসবুক পোস্ট দিয়েছেন আর্মেনিয়ার প্রধানমন্ত্রী।তিনি দাবি করেছেন, দেশকে স্থিতিশীল করা ও জাতীয় নিরাপত্তা নিশ্চিত করা এখন তার দায়িত্ব।

তার করণীয় সম্পর্কে ১৫ দফা উদ্যোগের কথা তুলে ধরেছেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। তিনি লেখেন, আমি এখন পুরোপুরি দৃঢ়প্রতিজ্ঞ।

আলজাজিরা

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক গণঅধিকার'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyganoadhikar@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

দৈনিক গণঅধিকার'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। দৈনিক গণঅধিকার | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, ডেভোলপ ও ডিজাইন: DONET IT