রবিবার ২৯ মে ২০২২, ১৫ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

ইউক্রেনের সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা

প্রকাশিত : 07:50 PM, 26 February 2022 Saturday

গণঅধিকার নিউজ ডেস্কঃ

একটি স্বাধীন সার্বভৌম রাষ্ট্রের সীমানা লঙ্ঘন করে একাধিক এলাকা দিয়ে ইউক্রেনে রাশিয়ার সৈন্যের প্রবেশ আন্তর্জাতিক আইনের নগ্ন বরখেলাপ—এ বিষয়ে সংশয়ের অবকাশ নেই। অতীতে যুক্তরাষ্ট্র ইরাকে হামলা চালানোর সময় একইভাবে আন্তর্জাতিক আইনের প্রতি বৃদ্ধাঙ্গুষ্ঠ দেখিয়েছে। সিরিয়ায় অভিযানের ব্যাপারে ন্যাটো এবং যুক্তরাষ্ট্রের আচরণ এ মানদণ্ডে অগ্রহণযোগ্যই শুধু নয়, তা রীতিমতো অপরাধের পর্যায়েই পড়ে। কিন্তু তা কোনো অবস্থাতেই একই আচরণের বৈধতা দেয় না। সেই দৃষ্টিকোণ থেকেই রাশিয়ার এ আগ্রাসনকে দেখতে হবে এবং তা যে আন্তর্জাতিক আইন ও নীতির বিরুদ্ধে, সেটা বলতে হবে। কিন্তু ইউক্রেনের ওপর রাশিয়ার হামলা ইউক্রেনকে দেওয়া প্রতিশ্রুতির সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতাও। এ প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল ১৯৯৪ সালের ডিসেম্বর মাসে স্বাক্ষরিত একটি সমঝোতা স্মারকে।

ইউক্রেন যখন তার হাতে থাকা সব ধরনের পারমাণবিক অস্ত্র ধ্বংস করে নন-প্রলিফারেশন অব নিউক্লিয়ার উইপন ট্রিটি বা পারমাণবিক অস্ত্রবিস্তার নিয়ন্ত্রণ চুক্তি স্বাক্ষর করতে সম্মত হয়, সে সময় একটি স্মারক স্বাক্ষরিত হয়েছিল। তাতে স্বাক্ষর করেছিল ইউক্রেন, রাশিয়া, ব্রিটেন ও যুক্তরাষ্ট্র। বুদাপেস্টে ৫ ডিসেম্বর ১৯৯৪ সই করা এ স্মারকে ইউক্রেনকে নিরাপত্তা দেওয়া হয়েছিল যে তার সার্বভৌমত্ব লঙ্ঘন করা হবে না।

কিন্তু সে কথার কোন মূল্য রাখলো কী রাশিয়া ? বিশ্বাসঘাতকতার পরিচয় দিল পুতিন ।

প্রথমত একটি স্বাধীন দেশ কোনো জোটে যোগ দেবে, সে সিদ্ধান্ত নেওয়ার অধিকার সেই দেশের এবং সেই দেশের জনগণের; কোনো বড় প্রতিবেশী দেশ সেটা অপছন্দ করলেই সেই দেশে সামরিক আগ্রাসনের অধিকার রাখে না।

দ্বিতীয়ত, ১৯৯৪ সালের স্মারকে কোথাও বলা হয়নি যে ইউক্রেন চাইলে ন্যাটোতে যোগ দিতে পারবে না। তদুপরি রাশিয়া বলছে ন্যাটো চাইছে তাকে চারদিক থেকে ঘিরে ফেলে তার সার্বভৌমত্বের ওপরে আঘাত হানতে, কিন্তু রাশিয়ার এ কথা কতটা বাস্তব?

দেওয়ান মনতাজ

শেয়ার করে সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়। আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক গণঅধিকার'কে জানাতে ই-মেইল করুন- dailyganoadhikar@gmail.com আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।

দৈনিক গণঅধিকার'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

© ২০২২ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। দৈনিক গণঅধিকার | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বে-আইনি, ডেভোলপ ও ডিজাইন: DONET IT